মানহানির মামলায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের মালামাল ক্রোকের নির্দেশ দিয়েছে নড়াইলের আমলী আদালত।

 

আজ মঙ্গলবার সিনিয়র জুডিশিয়াল আদালতের বিচারক মো. জাহিদুল আজাদ এ আদেশ দেন।

 

২০১৪ সালের ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবস উপলক্ষে ইংল্যান্ডের ইস্ট লন্ডনের এন্ট্রিয়াম ব্যাংকওয়েট হলে যুক্তরাজ্য বিএনপির এক সভায় তারেক রহমান বাংলাদেশের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘রাজাকার’ ও ‘পাকবন্ধু’ বলেন। বিষয়টি বিভিন্ন পত্রিকা ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় প্রচারিত হয়।

 

তারেক রহমানের এমন বক্তব্যে বাদীসহ বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের মানুষেরা বিস্মিত হন। নড়াইল জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তোফায়েল মাহমুদ তুফান বাদী হয়ে ২০১৪ সালের ২২ ডিসেম্বর নড়াইলের আমলী আদালতে মানহানি মামলা দায়ের করেন। মামলাটি আমলে নিয়ে বিজ্ঞ বিচারক সমন জারি করেন। পরবর্তীতে তারেক রহমানের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা এবং আজ মঙ্গলবার মাল ক্রোকের নির্দেশ দেন।

 

মামলার বাদীপক্ষের আইনজীবী উত্তম কুমার ঘোষ জানান, মাল ক্রোকের নির্দেশ মামলায় উল্লেখিত ঠিকানায় পাঠানোর পর প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এ ছাড়া মামলার ধার্য দিন ৩০ এপ্রিল আসামি তারেক রহমানকে আদালতে হাজিরের নির্দেশ দিয়েছে আদালত।