গোলাপগঞ্জ উপজেলার ভাদেশ্বর নাছির উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের ২০১২ এসএসসি ব্যাচের শিক্ষার্থীদের সমন্বয়ে গড়া সামাজিক উন্নয়নমূলক সংগঠন ‘ভাদেশ্বর সোশ্যাল এডভান্সমেন্ট এসোসিয়েশন’ সাফল্যের দ্বিতীয় বছরে পা রাখা উপলক্ষে আয়োজন করা হয় এই বর্ষপূর্তি ও কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা অনুষ্ঠান। উক্ত অনুষ্ঠানে গোলাপগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে মোট ৪১ জন এসএসসি উত্তীর্ণ জিপিএ-৫ প্রাপ্ত কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।

গত ৭ জুলাই শুক্রবার বিকাল ৪ ঘটিকার সময় ভাদেশ্বর সলিমা খানম বালিকা উচ্চবিদ্যালয় মিলনায়তনে ভাদেশ্বর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জিলাল উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মো: বদরুল ইসলাম শোয়েব। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নাক, কান, গলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা: নূরুল হুদা নাঈম, ৮ নং ভাদেশ্বর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান এম এ ছালিক, আমাদের প্রতিদিন সম্পাদক আনোয়ার শাহজাহান, নাছির উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষক তারেক জলিল, ক্রীড়া ব্যাক্তিত্ব ও শিক্ষানুরাগী শুহেদুজ্জামান চৌধুরী, বিসএএ উপদেষ্টা ও লেখক আবুল হাসনাত।

প্রথম অতিথি বদরুল ইসলাম শোয়েব সংগঠনটির ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন,’দেশের শিক্ষা ব্যবস্থা ও সমাজের উন্নয়নে তরুণরাই প্রথমে এগিয়ে আসে, বিসএএ’র মতো সংগঠন পারে দেশের শিক্ষা ও সমাজ ব্যবস্থাকে এগিয়ে নিতে।’ গোলাপগঞ্জের অতীত ঐতিহ্যের কথা তুলে ধরে সংবর্ধিত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্য করে তিনি আরো বলেন, ‘গোলাপগঞ্জের অতীত ঐতিহ্য ধরে রাখতে হলে তোমদের ভূমিকা হতে পারে খুবই গুরুত্বপূর্ণ, কৃতিত্বের সাথে ফলাফল করে একদিন বিশ্বমঞ্চে তোমরা হয়ে ওঠতে পারো গোলাপগঞ্জের যোগ্য প্রতিনিধি’।


ভাদেশ্বর সোশ্যাল এডভান্সমেন্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি রুহেল বিন ছায়েদের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক কাউছার আহমেদ মুন্না, কোষাধ্যক্ষ  সাব্বির আহমদ, নাহিদুর রহমান, সুব্রত বিশ্বাস, তুহেল আহমেদ ও মাজেদ আহমদ প্রমুখ।