আইবিএম ক্লাউড থেকে নিজেদের মালিকানাধীন মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপের ডেটা সরিয়ে নিজেদের ডেটা সেন্টারে আনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় সামাজিক মাধ্যম ফেইসবুক।

মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনবিসি’র এক প্রতিবেদনে বলা হয়, বিশ্বজুড়ে ১২০ কোটি মানুষের ব্যবহৃত হোয়াটসঅ্যাপ আইবিএম শীর্ষ পাঁচ ক্লাউড গ্রাহকের মধ্যে একটি। হোয়াটঅ্যাপ আইবিএম-এর সেবা নিতে প্রতি মাসে ২০ লাখ ডলার খরচ করছে।

এ নিয়ে আইবিএম-এর পক্ষ থেক বলা হয়, “হোয়াটসঅ্যাপ আইবিএম ক্লাউড-এর একটি চমৎকার গ্রাহক হয়ে গিয়েছে।”

“তাদের সাফল্যে আইবিএম ক্লাউড-এর ভূমিকা নিয়ে আমরা গর্বিত। তবে, নিজেদের ব্যবসায়গুলোর মধ্যে সমন্বয় করা ফেইসবুকের জন্য স্বাভাবিক।”

সাইনার্জি রিসার্চ নামের এক গবেষণা প্রতিষ্ঠানের তথ্য মতে, আইবিএমএর এই ক্লাউড ব্যবসায় অ্যামাজন ওয়েব সার্ভিসেস থেকে পিছিয়ে আছে। চলতি বছর এপ্রিলে বাজারের ৩৩ শতাংশ দখলে নিয়ে অ্যামাজনের ব্যবসায়টি শীর্ষে আছে, সেই সঙ্গে আছে মাইক্রোসফটের অ্যাজিউর ক্লাউডও।

২০১৪ সালে ফেইসবুক হোয়াটসঅ্যাপ-কে ১৯০০ কোটি ডলারের বিনিময়ে কিনে নেয়। সে সময় ফেইসবুক তাদের ফটো-শেয়ারিং অ্যাপ ইনস্টাগ্রামের ডেটা অ্যামাজন ওয়েব সার্ভিসেস থেকে নিজেদের ডেটা সেন্টারে আনার প্রক্রিয়া চালাচ্ছিল।